বরিশালে দু’টি কোচিং সেন্টার সিলগালা

স্টাফ রিপোর্টার |

বরিশালে সরকারি নির্দেশ অমান্য করায় দুটি কোচিং সেন্টার সিলগালা করে দিয়েছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। মঙ্গলবার সকাল ৮টার দিকে এই অভিযান পরিচালনা করেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রাসেল ইকবাল ।

তিনি জানান, এসএসসি পরীক্ষার প্রশ্নপত্র ফাঁস রোধে সরকার ১ মাসের জন্য সব ধরনের কোচিং কার্যক্রম বন্ধের নির্দেশ দেয়। প্রথম দিকে কোচিং সেন্টারগুলোকে সতর্ক করা হয়। এরপর একাধিক অভিযানে কয়েকটি কোচিং সেন্টার কর্তৃপক্ষকে অর্থদণ্ড দেয় ভ্রাম্যমাণ আদালত। কিন্তু জরিমানার টাকা পরিশোধ করে আবারও কোচিং কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছিলো তারা।

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে এ খবর পেয়ে ভ্রাম্যমাণ আদালত সকাল ৮টার দিকে প্রথমে নগরীর বগুড়া রোডের মুন্সির গ্যারেজ এলাকার মো. সাইফুল ইসলামের সাইনবোর্ডবিহীন কোচিং সেন্টারে অভিযান চালায়। সেখানে দশম শ্রেণিসহ বিভিন্ন শ্রেণির শিক্ষার্থীদের কোচিং করার সময় হাতেনাতে ধরে ফেলেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। এ সময় কোচিংরত শিক্ষার্থীদের বের করে দিয়ে কোচিং সেন্টারটি সিলগালা করে দেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

এরপর ভ্রাম্যমাণ আদালত সরকারী মহিলা কলেজের পেছনে থাকা অক্সফোর্ড মিশন স্কুলের শিক্ষক শ্যামা প্রসাদ বৈরাগীর কোচিং সেন্টারে অভিযান চালিয়ে কোচিংরত শিক্ষার্থীদের বের করে দিয়ে সাইনবোর্ডবিহীন ওই কোচিং সেন্টারটি সিলগালা করে দেয়।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রাসেল ইকবাল বলেন এরপরও কোচিং কার্যক্রম অব্যাহত থাকলে সরকার আরও কঠোর হতে বাধ্য হবে বলে জানিয়েছেন । এসএসসি পরীক্ষা চলাচালীন কোচিং কার্যক্রম বন্ধে অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে তিনি জানান।