বরিশাল থেকে সরকার পতনের এক দফা আন্দোলন শুরু বিভাগীয় প্রতিবাদ সমাবেশে চৌধুরী কামাল ইবনে ইউসুফ

বরিশাল টু-ডে ॥ বিএনপি’র কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি সাবেক মন্ত্রী চৌধুরী কামাল ইবনে ইউসুফ বলেছেন বরিশাল থেকে সরকার পতনের এক দফা আন্দোলন শুরু। তত্ত্বাবধায়ক সরকারের মাধ্যমে বিএনপি ক্ষমতা গ্রহণ করে দু’টি পদ্মা সেতু করবে। তিনি বলেন প্রধানমন্ত্রী বুঝে গেছে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধিনে নির্বাচন দিলে শুধু মাত্র গোপালগঞ্জ ছাড়া আর কোনো আসন পাবে না। বিএনপি’র কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক এম. ইলিয়াস আলী নিখোঁজ সহ কেন্দ্রীয় নেতাদের মুক্তির দাবীতে বিভাগীয় প্রতিবাদ সমাবেশে রবিবার প্রধান অতিথির বক্তৃতা করেন চৌধুরী কামাল ইবনে ইউসুফ। তিনি বলেন সরকার বিরোধী দলের নেতা-কর্মীদের উপর জুলুম নির্যাতন করে দেশ কারাগারে রূপান্তর করেছে। দেশের প্রত্যেকটি জেলে ধারণ ক্ষমতার অধিক বন্দি রয়েছে। সারাদেশের জেলে ৩৬ হাজার বন্দীর ধারণ ক্ষমতার স্থলে বিএনপি’র এক লাখের বেশি নেতা-কর্মী জেলে বন্দী রয়েছে। তিনি বলেন, বাংলাদেশের ইতিহাসে এই প্রথম গ্রাম-গঞ্জ থেকে লাখ লাখ নারী-পুরুষ এক যোগে আন্দোলন শুরু করেছে। তিনি সরকারকে উদ্দেশ্যে করে বলেন হেফাজতে ইসলামের দাবী মেনে নিয়ে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধিনে নির্বাচন না দিলে গ্রামের লোক শহরে এসে এ সরকারের পতন ঘটাবে।
বিকেল ৪টায় নগরীর অশ্বিনী কুমার টাউন হল চত্ত্বরে বিভাগীয় প্রতিবাদ সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন বিএনপি’র কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মহানগর বিএনপি’র সভাপতি মজিবর রহমান সরোয়ার এমপি। মজিবর রহমান সরোয়ার বলেন, সংবিধানে আল্লাহর উপর পূর্ণ আস্থা ও বিশ্বাস স্থাপন বাদ দিয়ে শেখ হাসিনা অমুসলিম হয়ে গেছে। তাকে আর মুসলমান বলা যাবে না। এ সরকার শাহবাগী ব্লগার-নাস্তিকদের প্রশাসন পাহারা দিচ্ছে। এর বিরুদ্ধে গ্রাম-গঞ্জে মসজিদে মসজিদে মাইকে ঘোষণা দিয়ে তৌহিদী জনতা রাজপথে নেমে আসছে। তিনি বরিশালবাসীকে এ সরকার পতনের এক দফা অসহযোগ আন্দোলনের জন্য এলাকায়, পাড়া মহল্লায় দুর্গ গড়ে তোলার আহবান জানান।
প্রতিবাদ সমাবেশে অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন, উত্তর জেলা বিএনপি’র সভাপতি মেজবা উদ্দিন ফরহাদ এমপি, মহানগর বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট কামরুল আহসান শাহীন, সাবেক এমপি আবুল হোসেন খান, বিএনপি নেতা এবায়দুল হক চাঁন, আলী হায়দার বাবুল প্রমুখ।
প্রতিবাদ সমাবেশ শেষে মঞ্চ থেকে আগামী মঙ্গল ও বুধবার কেন্দ্র ঘোষিত হরতাল সফল করার আহবান জানানো হয়।